রুকুতে যেতে যেতে তাকবীরে তাহরীমা বললে নামায হবে?

প্রশ্ন

অনেক সময় মসজিদে আসলে দেখা যায় যে, ইমাম সাহেব রুকুতে চলে গেছেন। তখন আমরা কাতারে দৌড়ে এসে তাকবীর বলতে বলতে রুকুতে চলে যাই। একজন আমাকে জানালে যে, এভাবে রুকুতে গেলে নাকি নামায হয় না। এ ব্যাপারে জানিয়ে কৃতার্থ করবেন।

উত্তর

بسم الله الرحمن الرحيم

আসলে নামাযের মাঝে তিন ধরণের তাকবীর রয়েছে। যথা-

১-তাকবীরে তাহরীমা।

২-তাকবীরে ইন্তিকালিয়া তথা উঠাবসার তাকবীর।

৩-তাকবীরে জায়েদা বা অতিরিক্ত তাকবীর।

তাকবীরে তাহরীমা ফরজ। তাকবীরে তাহরীমা আদায়ের স্থান হল দাঁড়িয়ে তা আদায় করা।

তাকবীরে ইন্তিকালিয়া তথা উঠাবসার তাকবীর সুন্নত। যা রুকু সেজদায় যাওয়া ও উঠার সময় বলা হয়ে থাকে।

তাকবীরে জায়েদা তথা অতিরিক্ত তাকবীর। যেমন ঈদের নামাযের ছয় তাকবীর। ইত্যাদি হল তাকবীরে জায়েদা। এসব তাকবীর হল ওয়াজিব।

আর নামাযের শুরুতে যে তাকবীর বলে নামাযে প্রবেশ করা হয়, সেটি হল তাকবীরে তাহরীমা। এটি ফরজ। আর এ তাকবীর আদায়ের স্থান হল দাঁড়িয়ে বলা। সুতরাং কোন ব্যক্তি সোজা হয়ে না দাঁড়িয়ে রুকুতে যেতে যেতে তাকবীর বলতে থাকে, তাহলে মূলত সেটি তাকবীরে তাহরীমা হচ্ছে না। তাকবীরে ইন্তিকালিয়া হয়ে যাচ্ছে। আর তাকবীরে তাহরীমা না হলে নামায হয় না। সে হিসেবে উক্ত ব্যক্তির নামায হবে না।

عَنْ مُحَمَّدِ بْنِ مَسْلَمَةَ، أَنَّ رَسُولَ صَلَّى عَلَيْهِ وَسَلَّمَ كَانَ إِذَا قَامَ يُصَلِّي تَطَوُّعًا قَالَ: «اللَّهِ أَكْبَرُ

হযরত মুহাম্মদ বিন মাসলামা রাঃ থেকে বর্ণিত। রাসূল সাঃ যখনি নফল নামাযে দাঁড়াতেন তখনি তিনি আল্লাহু আকবার বলতেন। {সুনানে নাসায়ী, হাদীস নং-৮৯৮, আলমুজামুল কাবীর-৮/২২৬, হাদীস নং-১৫৮৫৭}

এজন্য উচিত হল, আগে সোজা দাঁড়িয়ে তাকবীরে তাহরীমা বলার পর রুকুর তাকবীর বলে রুকুতে যাবে। যেতে যেতে বলবে না।

والله اعلم بالصواب

উত্তর লিখনে

লুৎফুর রহমান ফরায়েজী

সহকারী মুফতী-জামিয়াতুল আসআদ আল ইসলামিয়া-ঢাকা

ইমেইল-jamiatulasad@gmail.com

lutforfarazi@yahoo.com

নবাগত রাহী

"ইসলামিকএমবিট (ডট) কম" একটি উন্মুক্ত ইসলামিক ব্লগিং প্লাটর্ফম। এখানে সকলেই নিজ নিজ ইসলামিক জ্ঞান নিয়ে আলোচনা করতে পারেন, তবে এখানে বিতর্কিত বিষয় গুলো allow করা হয় না। আমি এই ব্লগ সাইটটির সকল টেকনিক্যাল বিষয় গুলো দেখাশুনা করি। আপনাদের যে কোন প্রকার সাহায্য, জিজ্ঞাসা, মতামত থাকলে আমাকে মেইল করতে পারেন contact@islamicambit.com

3 thoughts on “রুকুতে যেতে যেতে তাকবীরে তাহরীমা বললে নামায হবে?

  • November 21, 2013 at 7:37 am
    Permalink

    এমনিতেওতো অনেক হাদীসে নিষেদ্ধাজ্ঞাও আছে যে, নামাজে কখনও দৌরে আসা যাবে না, আপনি যদি নামাজে আসতেছেন এমতাবস্থায় দেখেন যে নামাজ শেষ হচ্ছে, তারপরও আপনি দৌরে আসতে পারবেন না, আপনার হেটেই আসতে হবে, তাতে নামাজ শেষ হয়ে গেলেও। আর নামাজের ৬০টি মাসালা নিয়ে আমি একটি অডিও পোষ্ট করে ছিলাম, অনেক দিন আগে, সেটা যারা শুনেছে তারা হয়তো অনেক কিছুই জানতে পেরেছেন, তারপরও এখন আপনার পোষ্ট দেখে ভাবতেছি অডিওটা বাংলা লিখে আবার পোষ্ট করব কিনা?

Leave a Reply